Sadhusongo

যে সকল মহতের ভাব, কথা, নির্দেশনা, দর্শন, সাহিত্য, সংস্কৃতিচেতনা নিয়ে মানুষ সামনে এগিয়ে চলেছে, মনুষ্যত্বের জ্ঞান অর্জন করে চলে। ভাবনগর ফাউন্ডেশনের কর্মীরা ভেবেছে মহতের ভুবনে অতীত, বর্তমান ও ভবিষ্যতের মিলন ঘটে সাধুসঙ্গে। তাই ঢাকার সৌহরাওয়ার্দী উদ্যানে, রমনা কালী মন্দির ও আনন্দময়ী আশ্রমের প্রবেশ গেটের দক্ষিণ পার্শ্বে ইট বাঁধানো বৃত্তে ভাবনগর সাধুসঙ্গের প্রবর্তন করেছেন। গত ১২ মে ২০১৪ তারিখ থেকে প্রায় নিয়মিতভাবে এই সাধুসঙ্গ চলে আসছে। প্রথম দিকে প্রতি সোম ও বুধবার দুই দিন এই সাধুসঙ্গ বসত, বর্তমানে প্রতি বুধবার বিকাল ৫টা থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত সাধুসঙ্গে চলে। ভাবনগরের প্রথম সাধুসঙ্গে মহাত্মা আহমদ ছফার “মাইজভান্ডার : একটি অক্ষম পর্যালোচনা” শীর্ষক প্রবন্ধ পঠিত হয়, একই সঙ্গে প্রবন্ধটি নিয়ে আলোচনা এবং সাধুদের সংগীত পরিবেশিত হয়। প্রথম সাধুসঙ্গে উপস্থিত ছিলেন কথাসাহিত্যিক নূরননবী শান্ত, সাহিত্যসারথি মিলন আশরাফ, কবি ও সমাজ সংস্করক সাঈদ হাফিজ, অন্তর সরকার, শাহ আলম দেওয়ান, সাইমন জাকারিয়া প্রমুখ।
দ্বিতীয় সাধুসঙ্গ অনুষ্ঠিত হয় গত ১৪ মে ২০১৪ তারিখে, সাধুসঙ্গের দ্বিতীয় আসরে অংশ নিয়েছিলেন কবি মিহির মুসাকী, চিত্রশিল্পী গুপু ত্রিবেদী, সংগীতসাধক দিলবাহার খান, সাংবাদিক-গবেষক খামিন, কবি সাইদ হাফিজ, কথাসাহিত্যিক বাকী বিল্ল­াহ, সংস্কৃত-সাহিত্যের নিরঞ্জনসহ অনেকে। প্রথম ও দ্বিতীয় উভয় সাধুসঙ্গে সৌহরাওয়ার্দী উদ্যানের ভ্রাম্যমান সাধক-কবিরাও অংশ নিয়েছিলেন। বাংলাদেশের সাধুদের ভাষায় বলা হয়েছে যে,-
“সাধু সঙ্গ কর তত্ত্ব জেনে
সাধন হবে না অনুমানে॥”

ভাবনগর তাই সাধুসঙ্গের জন্য সবাইকে আহ্বান করেন। ভাবনগরের সাধুসঙ্গের বিভিন্ন আসরে বাংলাদেশের বাইরের বহু পন্ডিত-গবেষক ও বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক-শিক্ষার্থীরা অংশ গ্রহণ করেছেন। জাপানের হিরোসিমা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংস্কৃতিক-নৃবিদ্যা বিভাগের অধ্যাপক ও লালনপন্থী গবেষক ড. মাসাহিকো তোগাওয়া, লন্ডন বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ও বাংলা ব্যাকরণ বিশেষজ্ঞ ড. হানা-রুথ ঠম্পসন, আমেরিকার টাফ্টস বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগের পিএইচ.ডি. স্কলার অনিকেত দে, স্টানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের এথনোমিউজিকোলজির পিএইচ.ডি স্কলার সুকন্যা চক্রবর্তী, ভারতের রবীন্দ্র ভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের পিএইচ.ডি গেবেষক ও সঙ্গীতশিল্পী সুতপা চৌধুরী, প্রমুখ ভাবনগরের সাধুসঙ্গে যোগ দিয়ে আলোচনায় অংশ নিয়েছেন। এছাড়া, বাংলাদেশের উন্মুক্ত বিশ্বদ্যালয়ের অধ্যাপক ও কবি-গবেষক শোয়াইব জিবরান, কবি মাসুদ খান, কবি-চলচ্চিত্রকার কামরুজ্জামান কাম্যু, কবি ফিরোজ এহতেশাম, কবি ও বিঞ্চিত শিশু-শিক্ষার কান্ডারী শাহেদ কায়েস, সাংবাদিক তরুণ সরকার, উন্নয়নকর্মী পিন্টু সাহা, চিন্তক ও সুফি-সাধক হাসিবুল হক চিশতি, প্রণয় প্রলকাপ রোজারিও, নৃতাত্ত্বিক-গবেষক নির্বাণ, কথাসাহিত্যিক গহর গালিব, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সংগীত বিভাগের শিক্ষক-শিক্ষার্থীগণ প্রায় নিয়মিত এই সাধুসঙ্গে যোগ দিয়ে থাকেন।
ভাবনগরের সাধুসঙ্গে এরমধ্যে ডক্টর মুহম্মদ শহীদুল্লাহ্, রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর, দেবেশ রায় প্রমুখের প্রবন্ধ পাঠ করা হয়েছে। এছাড়া, প্লেটোর সংলাপ থেকে সক্রেটিসের জবানবন্দি পাঠ করা হয়েছে। জাপানের হিরোসিমা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. মাসাহিকো তোগাওয়া নিজের লেখা বাংলা প্রবন্ধ পাঠ করেছেন।
প্রতি বুধবার ভাবনগরের এই সাধুসঙ্গ চলমান রয়েছে। দেশে ও দেশের বাইরের সবাইকে আমন্ত্রণ ভাবনগরের সাধুসঙ্গে।

 

 

10641108_939274076101448_4781218008477979409_n 10622753_10203813808680153_1375385370680477100_n 10612857_939273982768124_3035974044987459630_n 10610535_939274622768060_3245396762708767569_n 10505310_1485312878408968_8741068507329819099_n 10491158_1430030437270546_3931155575504832978_n 10463000_1430030423937214_6043948944828517822_n 10441425_1422289931377930_8096346082042768808_n 10372034_1413218158951774_7685588482721377907_n 14008_10203117513643099_2762772835039793411_n 25 June_10509608_1430030360603887_3089785546699855150_n 25 june 10516838_1430029113937345_7222353870051863238_n 12 May 2014_1st 10361408_1413218082285115_4463645171537445654_n 2nd July 10513396_1430386203901636_4303001119834651864_n 2nd July 10509720_1430385970568326_8053095705118841840_n 2nd 10402760_1414571275483129_624332412828228291_n 2nd 10365856_1414571188816471_7180410005355004693_n 2nd 10305075_1414571105483146_7794371969929536769_n 2nd 1619432_1414571208816469_5844915731490676955_n 2n june 10407495_1422290861377837_33920798375967118_n